মার্কিন নির্বাচনে দুই মুসলিম নারীর জয়লাভ

537

মঙ্গলবার অনুষ্ঠিত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যবর্তী নির্বাচনে দুইজন মুসলিম নারী কংগ্রেস সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। দেশটিতে প্রথমবারের মত এবারই প্রথম কোনো মুসলিম নারী প্রার্থী নির্বাচনে জয়লাভ করে আইনসভার সদস্য হলেন। নির্বাচিত দুইজনের একজন ফিলিস্তিনি বংশোদ্ভুত রাশিদা তালিব, অপরজন সোমালিয় বংশোদ্ভুত ইলহান ওমর। নির্বাচিত দুইজনই ডেমোক্র্যাট পার্টির প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেন।

ক্রমবর্ধমানভাবে মুসলিম বিদ্বেষ বাড়তে থাকা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মত একটি দেশের নির্বাচনে মুসলিম প্রার্থীর জয়লাভ একটি ঐতিহাসিক ব্যাপার। এর আগে প্রথম মুসলিম প্রার্থী হিসেবে মার্কিন নির্বাচনে জিতেছিলেন কেইথ এলিসন। নবনির্বাচিত দুই জনসহ এ নিয়ে মার্কিন ইতিহাসে তিনজন মুসলিম নির্বাচনে জয়লাভ করলেন।

মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় মধ্যরাত থেকে বুধবার সকাল পর্যন্ত এই ভোটগ্রহণ ও গণনা শেষে তাদের নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়।

৪২ বছর বয়সী রাশিদা তালিব ফিলিস্তিন অভিবাসী বাবা-মার ঘরে জন্মগ্রহণ করেন। ২০০৮ সালে মিশিগানের আইনসভায় নির্বাচিত হওয়ার মাধ্যমে তিনি প্রথম মুসলিম নারী হিসেবে ইতিহাস গড়েছিলেন।

অপরদিকে সোমালিয়ার গৃহযুদ্ধের সময় ইলহান ওমর ১৪ বছর বয়সে যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি জমান। তিনি মধ্য-পশ্চিমাঞ্চলীয় মিনেসোটা অঙ্গরাজ্য থেকে মার্কিন আইনসভার সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন।

রাশিদা তালিব কংগ্রেসের ১৩ নম্বর আসন থেকে ডেমোক্র্যাট পার্টির প্রার্থী হিসেবে জয় পান। একই দলের ইলহান ওমর কংগ্রেসের ৫ নম্বর আসন থেকে জিতেছেন। ওমরের আগে এই আসনে কংগ্রেসের প্রথম মুসলিম প্রার্থী হিসেবে কেইথ এলিসন জিতেছিলেন। রাষ্ট্রীয় অ্যাটর্নি জেনারেল হওয়ার দৌড়ে অংশ নিতে গিয়ে তাকে আসনটি ছাড়তে হয়েছিল।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.